অটোয়ায় ফোবানা অ্যাম্বাসেডর

August 16, 2013 4:12 pmComments Off on অটোয়ায় ফোবানা অ্যাম্বাসেডরViews: 33
Print Friendly and PDF
FaceBook YouTube

অটোয়ায় অ্যাম্বাসেডর
কবির চৌধুরী | আপডেট: ০১:২৮, আগস্ট ১৭
৩১ আগস্ট ও ১ সেপ্টেম্বর উত্তর আমেরিকার বড় সংগঠন ফেডারেশন অব বাংলাদেশি অ্যাসোসিয়েশনস ইন নর্থ আমেরিকা-ফোবানার ২০১৩ সালের সম্মেলন ঘিরে কানাডা ও আমেরিকার বিভিন্ন শহরে এখন আনন্দের জোয়ার বইছে। অভিবাসী অনেক বাঙালিই সারা বছর অপেক্ষা করে থাকেন এই অনুষ্ঠানটির জন্য। কারণ, এই ফোবানা সম্মেলন বাংলাদেশিদের মিলনমেলা। এখানেই দেখা হয় পুরোনো বন্ধুবান্ধবদের সঙ্গে। স্মৃতি রোমন্থনের সুযোগ আসে অনেকের জন্য। দেখা যায়, হোটেলের লবি বা সম্মেলনের স্টলগুলোর সামনে বা দর্শকসারিতে বসে তাঁরা যখন অনুষ্ঠান উপভোগ করছেন, তখন মনের মধ্যে পুরোনো অনেক স্মৃতি উঁকি দেয় সামনের মুখটিকে ঘিরে।

অভিবাসী বাংলাদেশিদের মিলনমেলা ফোবানা সম্মেলনকে সুন্দর ও সার্থক করতে ফোবানার দুটি অংশই নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে। উল্লেখ্য, এবার ফোবানার একটি অংশের সম্মেলন আমেরিকার আটলান্টা শহরে এবং অন্য অংশটির সম্মেলন বাঙালিদের নতুন আবাস ভূমি কানাডার মন্ট্রিল শহরের ঐতিহ্যবাহী অলিম্পিক স্টেডিয়ামের পিয়ের সারবোনোন সেন্টারে অনুষ্ঠিত হবে। মন্ট্রিল ফোবানা কমিটির সদস্যরা ফোবানা সম্মেলনকে সাফল্যমণ্ডিত করার লক্ষ্যে কানাডা আমেরিকার বিভিন্ন শহরে একের পর এক মতবিনিময় সভা করছেন।

এরই ধারাবাহিকতায় মন্ট্রিল ফোবানার আহ্বায়ক এজাজ আকতার তৌফিক, সহ-আহ্বায়ক গোলাম মাহমুদ, সদস্য কামাল চৌধুরী, সদস্য তোফাজ্জল হোসেনসহ ফোবানার একটি দল গত ১ আগস্ট অটোয়াতে মতবিনিময় সভা করেন। অটোয়ার স্থানীয় শুভানুধ্যায়ী ও সামাজিক সংগঠনের নেতাদের উপস্থিতিতে এজাজ আকতার সবাইকে ফোবানায় অংশ নিতে অনুরোধ করেন। তিনি জানান, সম্মেলনকে সার্বিকভাবে সফল করতে ফোবানা টিম আপ্রাণ চেষ্টা করছে। এ জন্য তারা বিভিন্ন শহরে মতবিনিময় সভা করছে। উদ্দেশ্য, সবার অংশগ্রহণ নিশ্চিত করা। এজাজ আকতার জানান, এখন পর্যন্ত আমেরিকা ও কানাডার ২৫টি সংগঠন সম্মেলনে অংশগ্রহণ নিশ্চিত করেছে। সংগঠনগুলোর রেজিস্ট্রেশন ২৩ আগস্ট পর্যন্ত অব্যাহত থাকবে।

‘মন্ট্রিলে এক টুকরো বাংলাদেশ’ টিম মন্ট্রিলের এই স্লোগান বুকে ধারণ করে সম্মমেলনকে সর্বাঙ্গীণভাবে সুন্দর এবং সার্থক করে তুলতে চেষ্টার কোনো ত্রুটি রাখছে না প্রস্তুতি কমিটি। সোনালি স্বপ্নের এক টুকরো বাংলাদেশকে ২৭তম ফোবানা সম্মেলনের মাধ্যমে তুলে ধরতে ফোবানা প্রস্তুতি কমিটি দিন-রাত নিরলস পরিশ্রম করে যাচ্ছে। এবারের সম্মেলনকে এযাবৎকালের একটি সেরা আয়োজন হিসেবে সফল করতে তাদের রয়েছে ব্যতিক্রমী চিন্তাভাবনা ও পরিকল্পনা। থাকছে চমকপ্রদ বেশ কিছু আকর্ষণ; যা ফোবানা সম্মেলনে আগত দর্শক-শ্রোতাদের চিত্তবিনোদনে যোগ করবে ভিন্নমাত্রা। দর্শক-শ্রোতারা পাবেন নতুনত্বের স্বাদ। কানাডা আমেরিকার স্থানীয় শিল্পীদের পাশাপাশি বাংলাদেশের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী মমতাজ, হূদয় খান ও ব্যান্ড দল মাইলসের অংশগ্রহণে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান হবে আকর্ষণীয়।

এ ছাড়া এবার ফোবানা সম্মেলন আকর্ষণীয় করতে প্রস্তুতি কমিটি বিভিন্ন শহর থেকে ফোবানা অ্যাম্বাসেডর নিয়োগ করেছেন। অটোয়া থেকেও দুজন সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্বকে ফোবানা অ্যাম্বাসেডর নিয়োগ করা হয়েছে। ১ আগস্ট অটোয়ায় মতবিনিময় অনুষ্ঠানে তাঁদের সবার সঙ্গে পরিচয় করিয়ে দেওয়া হয়। মন্ট্রিল ফোবানার আহ্বায়ক সেদিন ফোবানা অ্যাম্বাসেডর হিসেবে জাহিদা বেগম মিতা এবং সুলতানা শিরীন সাজিকে ফোবানা ব্যাজ পরিয়ে দেন। উল্লেখ্য, জাহিদা বেগম মিতা অটোয়া বাংলাদেশ কালচারাল সোসাইটির সহসভাপতি এবং সুলতানা শিরীন সাজি একজন কবি ও সাংস্কৃতিক কর্মী।
অভিবাসী বাঙালি হিসেবে আমরা আশা করি সবার অংশগ্রহণের মাধ্যমে ফোবানা সম্মেলন ২০১৩ সুন্দর ও সার্থকভাবে সম্পন্ন হবে।
কবির চৌধুরী
অটোয়া, কানাডা

সর্বশেষ সংবাদ

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.