ঢাকায় উবার ট্যাক্সি সেবা, প্রথম যাত্রী সাকিব

November 22, 2016 12:39 pmComments Off on ঢাকায় উবার ট্যাক্সি সেবা, প্রথম যাত্রী সাকিবViews: 59
Print Friendly and PDF
FaceBook YouTube

ঢাকায় ট্যাক্সি সেবা, প্রথম যাত্রী সাকিব

উবারImage copyrightTENGKU BAHAR
Image captionমোবাইল এ্যাপ ভিত্তিক ট্যাক্সি সেবা উবার

‘উবার’ নামের যে ‘অন-ডিমান্ড’ ট্যাক্সি সেবা সারা পৃথিবীর বড় শহরগুলোতে বৈপ্লবিক পরিবর্তন এনেছে – তারা এবার বাংলাদেশে রাজধানী ঢাকাতে এই প্রথমবারের মত ট্যাক্সি সার্ভিস চালু করেছে।

বাংলাদেশে যাত্রা শুরু করছে স্মার্টফোনভিত্তিক পরিবহণ সেবার অ্যাপ উবার। ঢাকায় এই পরিবহণ সেবার অন্যতম অংশীদার হিসেবে রয়েছে শীর্ষস্থানীয় টেলিকম কোম্পানি গ্রামীণফোন। মঙ্গলবার বেঞ্চমার্ক থেকে পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে একথা জানানো হয়। গ্রামীণফোন লিমিটেডের চিফ মার্কেটিং অফিসার ইয়াসির আজমান বলেন, ‘গ্রামীণফোনের সঙ্গে উবারের পার্টনারশিপ আমাদের গ্রাহকদের জন্য উবারের উদ্ভাবনী সেবা গ্রহণকে আরও সহজ করে তুলবে। আমাদের বিশ্বাস এই পার্টনারশিপ আমাদের গ্রাহকদের ডিজিটাল লাইফস্টাইলে একটি অন্যতম সংযোজন।’

 

বার্তা সংস্থা এএফপি বলছে, পৃথিবীর অন্যতম জনবহুল শহর ঢাকা ট্রাফিক জ্যামের জন্য বিখ্যাত হলেও উবার আশা করছে, এই সমস্যা কমাতে ভুমিকা রাখবে তাদের এই মোবাইল এ্যাপ-ভিত্তিক ট্যাক্সি সেবা।

দক্ষিণ এশিয়ায় ঢাকা হচ্ছে ৩৩তম শহর যেখানে উবার সেবা চালু হলো।

বাংলাদেশের ক্রিকেট তারকা সাকিব আল হাসান ছিলেন ঢাকায় উবার ট্যাক্সি সেবার প্রথম যাত্রী।

ঢাকা বাংলাদেশImage copyrightMUNIR UZ ZAMAN
Image captionঢাকা শহর বিখ্যাত যানজটের জন্য

ক্যালিফোর্নিয়া-ভিত্তিক উবার কোম্পানির ভারত ও দক্ষিণ এশিয়া বিভাগের প্রেসিডেন্ট অমিত জৈন বলেছেন, উবারের লক্ষ্য হচ্ছে প্রযুক্তি ব্যবহার করে শহরগুলোতে চলাচল সুগম করা এবং যানজট ও বায়ুদূষণ কমানো। উবারের ভারত ও দক্ষিণ এশিয়া অঞ্চলের প্রেসিডেন্ট অমিত জেইন বলেন, ‘উবার খুব সাধারণ একটি লক্ষ্য নিয়ে তার যাত্রা শুরু করে, যা হলো প্রযুক্তির ব্যবহারের মাধ্যমে আমাদের শহরগুলোতে যানজট এবং দূষণ কমাবার পাশাপাশি যাতায়াত ব্যবস্থাকে আরও সহজ করে তোলা। সরকারের ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তোলার লক্ষ্যকে সামনে রেখে প্রযুক্তির শক্তিকে চালক, যাত্রী এবং শহরের সুবিধার্থে কাজে লাগাবার সুযোগ পেয়ে আমরা রোমাঞ্চিত।’

বাংলাদেশের জুনিয়র তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক বলেছেন, ঢাকায় উবার চালু হওয়ায় তিনি খুবই উদ্দীপ্ত বোধ করছেন। উবার এর যাত্রা উপলক্ষে জুনায়েদ আহমেদ পলক বলেন, ‘স্মার্ট শহরগুলো ডিজিটাল বাংলাদেশের অবিচ্ছেদ্য অংশ। ঢাকায় উবার-এর যাত্রা আমাদের এই ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ার প্রচেষ্টায় সহায়ক ভূমিকা পালন করবে বলে আমি সত্যিই আনন্দিত। পাশাপাশি মাত্র একটি বাটন চেপেই উবার আমাদের দৈনন্দিন পরিবহণ ব্যবস্থাকে আরও সহজ করে তুলবে। সর্বোপরি উবার বাংলাদেশের অর্থনীতিতে একটি অভাবনীয় সম্ভাবনার সূচনা ঘটাবে।’

উবার বিভিন্ন শহরে চালু হবার পর প্রতিষ্ঠিত ক্যাব কোম্পানিগুলোর বাধা, মামলা ও বিক্ষোভের সম্মুখীন হয়েছে। ঢাকার ট্যাক্সি চালকদের এ ব্যাপারে প্রতিক্রিয়া এখনো জানা যায় নি।

তা ছাড়া যানজটের কারণে ট্যাক্সি অবাধ চলাচল বাধাগ্রস্ত হলে এ সেবা কতটা আকর্ষণীয় হবে তা নিয়েও অনেকে সংশয় প্রকাশ করেছেন।

প্রসঙ্গত, এক জায়গা থেকে অন্য জায়গায় যেতে নিরাপদ, নির্ভরযোগ্য এবং সুলভ ভ্রমণের একটি অ্যাপ উবার। সারা বিশ্বে প্রতিদিন গড়ে ৫০ লক্ষেরও বেশিবার উবার ব্যবহার করে লোকজন। মোট ৭৪টি দেশের ৪৫০টি শহরে উবারের সুবিধা রয়েছে।

সর্বশেষ সংবাদ

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.