বাংলাদেশের বিভিন্ন নীতি নির্ধারণে প্রতিবেশী দেশ-ভারতের বড় ধরনের ‘প্রভাব’ঃ যুক্তরাষ্ট্র

ঢাকা, ১ মে : সন্ত্রাস মোকাবিলায় বাংলাদেশ সরকারের নেওয়া বিভিন্ন পদক্ষেপের প্রশংসা করেছে যুক্তরাষ্ট্র। তারা বলেছে, গৃহীত বিভিন্ন পদক্ষেপের ফলে বাংলাদেশে ভিনদেশি সন্ত্রাসীদের কার্যক্রম চালানো কঠিন হয়ে পড়েছে।   

স্থানীয় ও আন্তর্জাতিক সন্ত্রাসী সংগঠনগুলোর বিরুদ্ধে লড়াইয়ের মধ্যে দিয়ে বাংলাদেশ সরকারের রাজনৈতিক সদিচ্ছা এবং প্রতিশ্রুতিরই প্রতিফলন ঘটেছে। দেখা গেছে, এসব উদ্যোগের ফলে ২০১৩ সালে বাংলাদেশে বড় ধরনের কোনো সন্ত্রাসী ঘটনা ঘটেনি।

সম্প্রতি মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টের প্রতিবেদন কান্ট্রি রিপোর্টস অন টেররিজম ২০১৩-এ পর্যবেক্ষণ তুলে ধরা হয়েছে। 

বৃহস্পতিবার প্রতিবেদনটি কংগ্রেসে জমা দিয়েছে স্টেট ডিপার্টমেন্ট।

তবে প্রতিবেদনটিতে যুক্তরাষ্ট্র এও বলেছে, আঞ্চলিক এবং আন্তর্জাতিক সন্ত্রাস মোকাবিলায় বাংলাদেশ অগ্রগতি অর্জন করলেও দেশটির বিভিন্ন নীতি নির্ধারণে প্রতিবেশী দেশ-ভারতের বড় ধরনের ‘প্রভাব’ রয়েছে। 

প্রতিবেদনে বিভিন্ন দেশে সন্ত্রাস মোকাবিলায় নেওয়া বিভিন্ন পদক্ষেপ, সন্ত্রাসীদের নিরাপদ স্থান এবং বিদেশি সন্ত্রাসী সংগঠন সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য তুলে ধরা হয়েছে। এর বাংলাদেশ অংশে স্টেট ডিপার্টমেন্ট দক্ষিণ এশিয়ায় সন্ত্রাস মোকবিলায় বাংলাদেশকে প্রভাবশালী অংশীদার হিসেবে উল্লেখ করা হয়। বলা হয়, বাংলাদেশ বৈশ্বিক সন্ত্রাস মোকাবিলায় নানা পদক্ষেপ গ্রহণ করছে। 

বিশেষ করে, সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে বাংলাদেশে আইনের বাস্তবায়ন এবং সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডে অর্থায়ন বন্ধে উল্লেখযোগ্য অগ্রগতি হয়েছে। ধর্মীয় উগ্রতার বিপরীতে নারীদের জন্য অর্থনৈতিক সুযোগ-সুবিধাও বাড়াচ্ছে বাংলাদেশ সরকার। যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে বাংলাদেশের সন্ত্রাসবিরোধী সহযোগিতা চুক্তির কারণে দুই দেশের মধ্যে সম্পর্কও উন্নত হচ্ছে।