যুক্তরাষ্ট্রকে টপকে চীন এখন বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ

যুক্তরাষ্ট্রকে টপকে চীন এখন বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ

অর্থনীতিবিদরা আগেই আভাস দিয়েছিলেন যে বিশ্ব অর্থনীতিতে দাপটের সঙ্গে আসছে চীন। চীনের অর্থনীতি মার্কিন অর্থনীতিকেও ছাড়িয়ে যাবে। যুক্তরাষ্ট্রের দিন শেষ হতে চললো। ঠিক তেমনটাই ঘটেছে। মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে বিশ্বের বৃহত্তম অর্থনীতির দেশ এখন চীন।
বর্তমানে চীনের অর্থনীতির মূল্য ১৭.৬ ট্রিলিয়ন ডলার, যা যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে দশমিক ২ ট্রিলিয়ন ডলার বেশি। অর্থাত্ যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতির মূল্য ১৭.৪ ট্রিলিয়ন ডলার।
আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) এক হিসাবে এই তথ্য বেরিয়ে এসেছে।

আইএমএফ মনে করছে, কয়েক দশক ধরে শিল্পায়নের মাধ্যমে চীনের সম্পদ দ্রুতহারে যেভাবে বৃদ্ধি পেয়েছে, তাতে বিশ্ব অর্থনীতির এ শীর্ষস্থান চীন ধরে রাখতে পারবে।

১৫০ বছর বিশ্ব অর্থনীতিতে শীর্ষ অবস্থান ধরে রাখতে পারলেও শেষ পর্যন্ত চীনের কাছে যুক্তরাষ্ট্রের অবস্থান খোয়াতে হলো। আর এর সঙ্গে বিশ্ব অর্থনীতিতে যুক্তরাষ্ট্রের আধিপত্যের অবসান হলো। এর আগে ১৮৭২ সালে ব্রিটেনকে টপকে বিশ্বের বৃহত্তম অর্থনীতির দেশে পরিণত হয়েছিল যুক্তরাষ্ট্র।

আইএমএফের হিসাবে আরো বলা হয়েছে, ২০১৯ সালের মধ্যে চীনের অর্থনীতি ২৭ ট্রিলিয়ন ডলারে পৌঁছাবে। অন্যদিকে সে সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের অর্থনীতি ২২.৩ ট্রিলিয়ন ডলার স্পর্শ করবে। অর্থাত্ সে সময়ে যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে ২০ শতাংশ বড় থাকবে চীনের অর্থনীতি।

চীনের পণ্যের দাম যুক্তরাষ্ট্রের তুলনায় সস্তা। ‘পারচেজিং পাওয়ার প্যারিটি বা পিপিপি’ নামে পরিচিত পদ্ধতিতে পণ্যমূল্যে বিরাজমান এ বৈষম্যে সমতা এনে দুই দেশের অর্থনীতিসংক্রান্ত এ হিসাব দেয়া হয়েছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, অর্থনীতির শীর্ষ অবস্থান থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে হটিয়ে দেয়ার এ ঘটনা বিশ্ব অর্থনীতিতে একটি প্রতীকী মুহূর্ত হয়ে থাকবে।

সূত্রঃ বর্তমান