কোমর ও পেটের চর্বি কাটে যেসব খাবারে

কোমর ও পেটের চর্বি কাটে যেসব খাবারে

কোমর ও পেটের চর্বি কাটে যেসব খাবারে পেটে চর্বি জমে গেলে, কোমরে একাধিক ভাঁজ দেখা গেলে তা যে শুধু ব্যক্তিত্বের ক্ষতি করে তাই না বরং সুস্বাস্থ্যের উপরও অনেকখানি প্রভাব আনে। বাড়তি চর্বির কারণে হাঁটা-চলা করতে কষ্ট হওয়া বা অল্পতেই হাঁপিয়ে ওঠার সমস্যাও দেখা যায় তাদের মধ্যে। তাই সুন্দর দৈহিক গড়ন ও শরীর-স্বাস্থ্য ফিট রাখতে নিয়মিত ব্যায়াম করার পাশাপাশি আমাদের প্রতিদিনের খাবার তালিকায় এমন কিছু খাবার রাখতে হবে যা কিনা কোমর ও পেটের অতিরিক্ত চর্বি কমাতে সাহায্য করবে।

কাজুবাদাম: ত্বক সুন্দর করে তুলতে প্রয়োজনীয় ভিটামিন ‘ই’ ও প্রোটিনের পাশাপাশি কাজু বাদামে আছে প্রচুর ফাইবার যা দীর্ঘ সময় ধরে পেট ভরা রাখে ফলে কম ক্ষুধা লাগে। কাজুবাদামে খুব সামান্য ক্যালোরি থাকলেও তাতে পেটে চর্বি জমেনা। তাই যখনই ক্ষুধা লাগে তখনই চর্বিযুক্ত বা অন্য কোনো খাবার না খেয়ে কয়েকটি কাজুবাদাম খেয়ে নিতে পারেন। 
আপেল: সেই বিখ্যাত প্রবাদ কে না জানে? এই ফলটি যেমন রোগবালাই দূরে রাখে তেমনই সুস্বাস্থ্যের জন্যও কার্যকরী ফল আপেল। আপেলে আছে অনেক ফাইবার। ফলে একটি আপেল খেলেই পেট অনেকটা ভরে যায়। আপেলের ফাইবার পেটের চর্বি কাটাতে সাহায্য করে। 
খেজুর: এটি একটি জাদুকরী ফল। এর মধ্যে বিভিন্ন পুষ্টি উপাদানের কমতি নেই। খেজুর খেলে ক্ষুধা কম লাগে, দীর্ঘ সময় ধরে পেট ভরা থাকে। শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় পুষ্টির যোগান দেয়। 
শশা: একদমই লো-ক্যালোরিযুক্ত সবজি হলো শশা। এর মধ্যে ৯৬ শতাংশই পানি। যা শরীরকে রাখে ঠান্ডা। একটি শশাতে আছে ৪৫ শতাংশ ক্যালোরি যা পেটের চর্বি কমাতে সাহায্য করে।

সবুজ শাক-সবজি: খুব দ্রুত যদি কেউ পেট ও কোমরের চর্বি কাটাতে চায় তার জন্য সব থেকে ভালো উপায় হবে প্রচুর সবুজ শাক-সবজি খাওয়া। সব ধরনের সবুজ শাক-সবজিতে প্রচুর মিনারেল, ফাইবার, ভিটামিন থাকে যা শরীরের অতিরিক্ত চর্বি কমিয়ে দেয়।
তরমুজ: তরমুজে আছে ৮২ শতাংশ পানি। এই তরমুজ শরীরের জন্য প্রয়োজনীয় সোডিয়ামের যোগান দেয়। মিষ্টি এই ফলে অনেক ভিটামিন ‘সি’ ও আছে এবং ১ কাপ তরমুজের রসে আছে ১’শ শতাংশ ক্যালোরি যা পেটের চর্বি কাটিয়ে দেয়।
/চ্যানেল আই অনলাইন