মার্কিন কংগ্রেসে প্রথম মুসলিম নারী

0
14

মার্কিন কংগ্রেসে প্রথম মুসলিম নারী

মুজিব সেনা নিউজ : প্রথম মুসলমান নারী হিসেবে মার্কিন কংগ্রেসের সদস্য হতে যাচ্ছেন রাশিদা তালাইব। মিশিগান অঙ্গরাজ্যের ডেমোক্রেটিক প্রাইমারি নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে তিনি এ ইতিহাস গড়তে যাচ্ছেন।

ফিলিস্তিনি অভিবাসীর সন্তান ৪২ বছর বয়সী রাশিদা ৭ আগস্ট, মঙ্গলবারের প্রাইমারি নির্বাচনে ৩৩.৬ শতাংশ ভোট পেয়ে নির্বাচিত হন। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী ব্রেন্ডা জোনস পেয়েছেন ২৮.৫ শতাংশ ভোট।

নভেম্বরের মধ্যবর্তী কংগ্রেস নির্বাচনে রাশিদার কোনো প্রতিদ্বন্দ্বী নেই। অর্থাৎ আগামী বছরের জানুয়ারিতে নিশ্চিতভাবেই তিনি দুই বছরমেয়াদি কংগ্রেসের সদস্য হিসেবে কাজ শুরু করতে যাচ্ছেন।

রাশিদা তালাইব জন কনেয়ার্সের স্থলাভিষিক্ত হতে যাচ্ছেন। গত বছরের ডিসেম্বরে তার বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগ উঠলে স্বাস্থ্যগত কারণ দেখিয়ে পদত্যাগ করেন তিনি। এ নির্বাচনে বিজয়ের ফলে রাশিদা নভেম্বরের নির্বাচনে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হবেন এবং কনেয়ার্সের মেয়াদের বাকি দুই মাসও তার স্থলে দায়িত্ব পালন করবেন।

নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে দারুণ উচ্ছ্বসিত রাশিদা এক টুইটে লেখেন, ‘অসম্ভব মুহূর্তকে সম্ভব করার জন্য ধন্যবাদ। আমি ভাষা হারিয়ে ফেলেছি। কংগ্রেসে আপনাদের স্বার্থে কাজ করার জন্য অধীর আগ্রহে অপেক্ষা করছি।’

২০০৬ সালে মিনেসোটার কেইথ এলিসন প্রথম কোনো মুসলমান হিসেবে কংগ্রেস সদস্য নির্বাচিত হয়েছিলেন। ২০০৮ সালে আন্ড্রে কার্সন দ্বিতীয় মুসলমান হিসেবে কংগ্রেস সদস্য নির্বাচিত হন। রাশিদা তৃতীয় মুসলমান ও প্রথম মুসলমান নারী হিসেবে কংগ্রেস সদস্য হতে যাচ্ছেন।

ওয়াশিংটন ডিসি থেকে আল জাজিরার সংবাদদাতা কিমবার্লি হালকেট জানাচ্ছেন, রাশিদার বিজয় নারী এবং সংখ্যালঘুদের জন্য দারুণ অনুপ্রেরণাদায়ক হিসেবে কাজ করবে।

কংগ্রেস নির্বাচনে আরও কয়েকজন মুসলমান প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তবে সেসব জায়গায় এখনো নির্বাচন হয়নি।