নেটফ্লিক্সে আবার ‘সেক্রেড গেমস’

‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজে সাইফ আলী খান
‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজে সাইফ আলী খান

নেটফ্লিক্সে আবার ‘সেক্রেড গেমস’

প্রথম সিজনের প্রথম পর্ব থেকেই দারুণ জনপ্রিয় হয় ‘সেক্রেড গেমস’। কিন্তু জনপ্রিয় হলেও অনেক ঝামেলা পোহাতে হয়েছে নেটফ্লিক্সকে। বোফোর্স মামলা, শাহ বানু মামলা এবং বাবরি মসজিদের মতো ঐতিহাসিক ঘটনাগুলোকে এই ওয়েব সিরিজে বিকৃত করে দেখানো হয়েছে—এই অভিযোগে গত জুলাই মাসে দিল্লি হাইকোর্টে একটি জনস্বার্থ মামলা করেন আইনজীবী নিখিল ভল্ল। তিনি কংগ্রেসের লিগ্যাল সেলের সঙ্গে যুক্ত আছেন। প্রয়াত প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধীর সম্পর্কে অশ্লীল শব্দ ব্যবহার করা হয়েছে, এমনকি ওয়েব সিরিজে অপমান করা হয়েছে রাজীব গান্ধীকে—তাই ওই বিতর্কিত দৃশ্যগুলো বাদ দেওয়ার জন্য আবেদন করেন তিনি৷

নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি, সাইফ আলী খান ও রাধিকা আপ্তে অভিনীত এই ওয়েব সিরিজ নিয়ে প্রথম দিন থেকেই বিতর্ক চরমে৷ রাজীব গান্ধীকে অপমান করার অভিযোগে কলকাতার গিরিশ পার্ক থানায় নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকির বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন এক কংগ্রেস নেতা৷ শুধু নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকিই নয়, ওয়েব সিরিজের প্রযোজক এবং পরিচালকের বিরুদ্ধেও অভিযোগ করেন তিনি৷

‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্য
‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্য


এরপর গত ১৬ জুলাই দিল্লির হাইকোর্ট নির্দেশ দেন, পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের আর কোনো নতুন পর্বের প্রচার করা যাবে না। তখন পর্যন্ত ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের প্রথম সিজনের আটটি পর্ব প্রচারিত হয়। এ ব্যাপারে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে আদালত জানান, যে পর্বগুলো প্রচারিত হয়েছে, তা নিয়ে বলার কিছু নেই। মামলার নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত যাতে পরবর্তী পর্বগুলো প্রচারিত না হয়, সে ব্যাপারে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য নেটফ্লিক্স কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দেওয়া হয়।

এই ওয়েব সিরিজে যাঁরা অভিনয় করেছেন, মামলায় তাঁদের বিরুদ্ধে অভিযোগ করা হয়। এ প্রসঙ্গে আদালত বলেন, এ মামলায় কোনো অভিনেতা বা অভিনেত্রীর নাম উল্লেখ করার প্রয়োজন নেই। কারণ, সংলাপ বলা তাঁদের পেশা। সুতরাং তাঁরা তাঁদের কাজ করছেন। এ নিয়ে তাঁদের অভিযুক্ত করা যাবে না।

তবে গতকাল শুক্রবার নেটফ্লিক্সের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দ্বিতীয় সিজন আসছে শিগগিরই। আইনি জটিলতার ব্যাপারে কোনো মন্তব্য না করে নেটফ্লিক্সের ভাইস প্রেসিডেন্ট এরিক বারম্যাক বলেছেন, ‘সেক্রেড গেমসের প্রথম সিজনের সাড়া দেখে আমার অভিভূত। বিশেষ করে ভারতে। এটা আন্তর্জাতিক মানের একটি প্রোডাকশন। আমরা আনন্দের সঙ্গে জানাচ্ছি, শিগগিরই “সেক্রেড গেমস” সিরিজের দ্বিতীয় সিজন শুরু করতে যাচ্ছি।’

‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্য
‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্য

‘পারলে শহরকে বাঁচাও।’—রেডিওতে একটি হুমকি। আর এখানে শেষ হয় নেটফ্লিক্সের জনপ্রিয় ওয়েব সিরিজ ‘সেক্রেড গেমস’-এর প্রথম সিজন। জানা গেছে, দ্বিতীয় সিজনে দেখা যাবে, মুম্বাই শহরকে রক্ষা করার জন্য সরতাজ সিং (সাইফ আলী খান) মরিয়া হয়ে উঠেছে। গণেশ গাইতোন্ডের বলে যাওয়া রাস্তাই তাঁকে মুম্বাইয়ের ডনের জায়গায় ফিরিয়ে নিয়ে আসবে। প্রথম সিজনে দর্শক গণেশ গাইতোন্ডের (নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি) দুই বাবার সঙ্গে পরিচিত হয়েছেন। কিন্তু তার তৃতীয় বাবার (পঙ্কজ ত্রিপাঠি) ব্যাপারে সেভাবে জানা যায়নি। ‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দ্বিতীয় সিজনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় থাকবেন পঙ্কজ ত্রিপাঠি। দ্বিতীয় সিজনের শুটিং হয়েছে ভারতে এবং ভারতের বাইরে। এবার ‘সেক্রেড গেমস’ সিরিজে নতুন কিছু চরিত্র যুক্ত হবে।

‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্যে সাইফ আলী খান
‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্যে সাইফ আলী খান

বিক্রম চন্দ্রের থ্রিলার উপন্যাস ‘সেক্রেড গেমস’ প্রকাশিত হয় ২০০৬ সালে। এই উপন্যাস অবলম্বনে তৈরি হয়েছে ওয়েব সিরিজটি। উপন্যাসের নামেই এই ওয়েব সিরিজের নাম ‘সেক্রেড গেমস’। প্রথম পর্বটি প্রচারিত হয় গত ৬ জুলাই। পরিচালনা করেন অনুরাগ কাশ্যপ ও বিক্রমাদিত্য মোতওয়ানে। এখানে অভিনয় করেছেন সাইফ আলী খান, নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি ও রাধিকা আপ্তে। একজন পুলিশ কর্মকর্তাকে ঘিরে তৈরি হয়েছে গল্প। মুম্বাইয়ে জঙ্গি হামলার হুমকি দেয় এক অপরাধী। এরপর একজন পুলিশ কর্মকর্তা কীভাবে সেই হামলা ঠেকানোর চেষ্টা করেন, তা নিয়ে ‘সেক্রেড গেমস’।

‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্যে নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি
‘সেক্রেড গেমস’ ওয়েব সিরিজের দৃশ্যে নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকি

এই ওয়েব সিরিজের গল্পে কংগ্রেসের শাসন আমলে মুম্বাইয়ের অপরাধ জগৎকে দেখানো হয়েছে। পাশাপাশি রয়েছে ইন্দিরা গান্ধীর জরুরি অবস্থা জারি। রয়েছে বোফোর্স কেলেঙ্কারি আর ১৯৮৫ সালের আলোচিত শাহ বানু মামলা৷ এসব ঘটনায় সাবেক প্রধানমন্ত্রী রাজীব গান্ধী কীভাবে জড়িয়ে গিয়েছিলেন, রয়েছে তা৷ আরও আছে লালকৃষ্ণ আদভানির রথযাত্রা, বাবরি মসজিদ ধ্বংস, মুম্বাইয়ে বোমা বিস্ফোরণসহ বিভিন্ন ঘটনা।