সেলফি তুলতে গিয়ে ছয় বছরে ২৫৯ জনের মৃত্যু

সেলফি তোলার নেশাটা কমবেশি সবারই রয়েছে। তবে তরুণ প্রজন্মের কাছে সেলফির জনপ্রিয়তা সবচেয়ে বেশি। তাই তারা ক্যামেরায় নিজেকে অনন্য করে তুলতে রীতিমত ‘সেলফি তোলার প্রতিযোগিতা’ শুরু করেছেন। নিজেকে আলাদা করতে গিয়ে চরম ঝুঁকি নিয়ে কখনও চলন্ত ট্রেনের সামনে, পাহাড়ের চূড়ায়, উঁচু কোনো দালানের কার্নিশে উঠে বা মাথায় বন্দুক ধরে তুলছে সেলফি। আর এমনটা করতে গিয়ে বিপত্তি ঘটছে অহরহ। অকালে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ার ঘটনা বা প্যারালাইজড হওয়ার ঘটনাও নেহাতই কম নয়।

সম্প্রতি এক তথ্যে প্রকাশিত হয়েছে, ২০১১ থেকে ২০১৭ সাল পর্যন্ত সেলফি তুলতে গিয়ে বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে নিহত হয়েছেন ২৫৯ জন। তারা জীবনকে ঝুঁকির মধ্যে ফেলে সেলফি তুলতে গিয়ে নিহত হন। তবে অনেকেই বলছেন সেলফির কারণে মৃত্যুর প্রকৃত সংখ্যা এর চেয়ে অনেক বেশি।

পরিসংখ্যানে দেখা গেছে- সেলফি তুলতে গিয়ে নিহতদের অধিকাংশই ভারতের বাসিন্দা। এর পরের স্থানটি রয়েছে রাশিয়া, যুক্তরাষ্ট্র ও পাকিস্তানের। নিহত অধিকাংশের বয়স ত্রিশের নিচে।

ভারতে ২০১১ থেকে ২০১৭ পর্যন্ত সময়ে সেলফি তুলতে গিয়ে ১৫৯ জন নিহত হয়েছে বলে জানা গেছে অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল সায়েন্সেস-এর গবেষণায়। গবেষণার ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে জার্নাল অব ফ্যামিলি মেডিসিন অ্যান্ড প্রাইমারি কেয়ার-এ।

সেলতি তুলতে গিয়ে কিভাবে এত মানুষ নিহত হলো? এ প্রসঙ্গে গবেষকরা বলছেন, তারা অনেকেই সেলফি তোলার সময় নৌকার কিনারে দাঁড়িয়েছিলেন। এতে পানিতে পড়ে মৃত্যু হয়েছে। কেউ বা উঁচু ভবনের কিনারে দাঁড়িয়ে সেলফি তোলার সময় পড়ে গেছেন। এছাড়া রেল লাইনে দাঁড়িয়ে সেলফি তোলার সময় মৃত্যুর ঘটনাও দেখা গেছে। বিপজ্জনক প্রাণীদের সঙ্গে সেলফি তোলার চেষ্টাতেও মৃত্যু হয়েছে অনেকের।